‘নরেন্দ্র মোদি একবর্ণ ইংরেজি পারেন না, টেলিপ্রম্পটার দেখে বলেন’

১১ জানুয়ারি,২০১৯

‘নরেন্দ্র মোদি একবর্ণ ইংরেজি পারেন না, টেলিপ্রম্পটার দেখে বলেন’

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আরটিএনএন
পশ্চিমবঙ্গ: নরেন্দ্র মোদি সরকারের স্বপ্নের স্বাস্থ্যপ্রকল্প 'আয়ুষ্মান ভারত' নিয়ে বলতে গিয়ে মোদিকে কটাক্ষ করলেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। মমতা বলেন, ‘উনি (নরেন্দ্র মোদি) এত সব বক্তৃতা দেন। কিন্তু উনি তো একবর্ণ ইংরেজি বলতে পারেন না। তাই বক্তৃতা দেওয়ার সময় টেলিপ্রম্পটার দেখে ইংরেজি বলেন।’

গতকাল বৃহস্পতিবার ভারতের পশ্চিমঙ্গের নদিয়া জেলার প্রশাসনিক এক সভায় তিনি এসব কথা বলেন বলে জানিয়ে এনডিটিভি।

মমতা বলেন, ‘মিডিয়া এটা জানে ভালোমতোই। আমরা জানি। আপনি স্ক্রিনের দিকে তাকাচ্ছেন, বক্তব্যটা দেখছেন আর গড়গড় করে পড়ে যাচ্ছেন... এটাই টেলিপ্রম্পটার। আমরা কিন্তু এইসব ব্যবহার করি না।’

গত সেপ্টেম্বরে 'আয়ুষ্মান ভারত' ও ডাবল মোদিকেয়ার এই দুটি স্বাস্থ্যপ্রকল্প চালু করেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। তবে এসব প্রকল্প গ্রহণে নাকচ করে পাঁচটি রাজ্য। তাদের যুক্তি, জনগণের জন্য তাদের কাছে উন্নতমানের স্বাস্থ্যপ্রকল্প রয়েছে। এদের মধ্যে র্শীষে ছিল তেলেঙ্গানা রাজ্য।

মমতার গলাতেও এখন ওইসব রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীদেরই প্রতিধ্বনি। মমতা আরও বলেন, ‘আমাদের আরোগ্যশ্রী রয়েছে। যা কোনও অংশে কম নয়।’

এদিকে 'আয়ুষ্মান প্রকল্প'-এর ব্যাপারে বারবার অর্ধসম্মতি হওয়ার কারণে মমতার ওপর ভালোই চটেছেন নরেন্দ্র মোদি। রাজ্যের নির্বাচনী প্রচারণাকালে মোদি অভিযোগ করেন, ‘মমতার জন্য রাজ্য কেন্দ্রীয় সরকারের পরিকল্পনা থেকে বঞ্চিত হচ্ছে।’

মন্তব্য

মতামত দিন

এশিয়া পাতার আরো খবর

মুসলমানদের যত রক্ত ঝরিয়েছেন তার প্রতিশোধ নেব: নেতানিয়াহুকে আইআরজিসি’র কমান্ডার

আন্তর্জাতিক ডেস্কআরটিএনএনতেহরান: ইরানের ইসলামি বিপ্লবী গার্ড বাহিনী- আইআরজিসি’র কমান্ডার মেজর জেনারেল মোহাম্মাদ আল . . . বিস্তারিত

প্রধানমন্ত্রী হতে জোটের কিছু লোক আমাকে বাধা দেয়ার চেষ্টা করছেন: আনোয়ার ইব্রাহীম

আন্তর্জাতিক ডেস্কআরটিএনএনকুয়ালালামপুর: মালেশিয়ার পরবর্তী হবু প্রধানমন্ত্রী আনোয়ার ইব্রাহীম বলেছেন যে, ক্ষমতাসীন জোটের কি . . . বিস্তারিত

 

 

 

 

 

 



ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: ড. সরদার এম. আনিছুর রহমান,
ফোন: +৮৮০-২-৮৩১২৮৫৭, +৮৮০-২-৮৩১১৫৮৬, ফ্যাক্স: +৮৮০-২-৮৩১১৫৮৬, নিউজ রুম মোবাইল: +৮৮০-১৬৭৪৭৫৭৮০২; ই-মেইল: rtnnimage@gmail.com