দেশ চালাচ্ছেন মোদী-ভাগবত : রাহুল

১২ জুন,২০১৮

দেশ চালাচ্ছেন মোদী-ভাগবত : রাহুল

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
আরটিএনএন
নয়াদিল্লি: প্রণব মুখোপাধ্যায় আরএসএসের মঞ্চে যাওয়ায় অস্বস্তিতে পড়েছিল কংগ্রেস। আজ সঙ্ঘ-প্রধান মোহন ভাগবতকে প্রবল আক্রমণ করলেন রাহুল গান্ধী। রাহুল গান্ধীর দেওয়া প্রথম ইফতারে প্রণব মুখোপাধ্যায়কে আমন্ত্রণ করা নিয়েও দিনভর জল্পনা চলে।

শেষ পর্যন্ত অবশ্য রাহুল গান্ধী প্রণববাবুকে ফোন করে আমন্ত্রণ জানান। কংগ্রেসের দাবি, তা গ্রহণও করেছেন প্রণববাবু।

আরএসএসের লোকেরাই গান্ধীকে হত্যা করেছে বলে মন্তব্য করায় রাহুলের বিরুদ্ধে মহারাষ্ট্রে মামলা হয়েছে। বুধবার (১৩ জুন) মহারাষ্ট্রের আদালতে হাজিরা দেবেন তিনি।

তার আগে দিল্লিতে দলের অন্যান্য অনগ্রসর শ্রেণি সংক্রান্ত (ওবিসি) সম্মেলনে নরেন্দ্র মোদীর সঙ্গে মোহন ভাগবতকেও এক হাতে নিয়েছেন কংগ্রেস সভাপতি। বুঝিয়ে দিয়েছেন, আরএসএস সম্পর্কে কংগ্রেসের অবস্থানে এক চিলতেও বদল হয়নি।

দিল্লিতে দলের ওবিসি সম্মেলনে রাহুল আজ বলেন, কংগ্রেস জনতাকে বাসে চাপিয়ে চাবি তাদের হাতে দিয়ে দেয়। আর বিজেপি জনতাকে বাসে চাপিয়ে আরএসএসকে চালাতে বলে। আরএসএস বিভাজনে নেমে পড়েছে। গোটা দেশটি এখন নরেন্দ্র মোদী আর মোহন ভাগবত চালাচ্ছেন।

রাহুলের দাবি, দেশ এক রকম নরেন্দ্র মোদী, অমিত শাহ ও মোহন ভাগবতের গোলাম হয়ে গিয়েছে। পুরো বিরোধী শক্তি এককাট্টা হচ্ছে। জনতা নিজেদের শক্তি দেখিয়ে তাদের বলবে, তিন জনকে দিয়ে দেশ চলবে না।

রাহুলের দেওয়া প্রথম ইফতারে প্রণববাবুকে আমন্ত্রণ জানানো নিয়ে জল্পনা চলে দিনভর। প্রথমে কংগ্রেস জানায়, দলের অনুষ্ঠান বলেই প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি, এমনকি প্রাক্তন উপরাষ্ট্রপতি হামিদ আনসারিকেও আমন্ত্রণ জানানো হয়নি।

যদিও গত বছরের ডিসেম্বর মাসে রাহুল গান্ধীর ডাকা সনিয়া গান্ধীর ‌‌‍'ফেয়ারওয়েল পার্টি'তে হাজির ছিলেন প্রণব ও আনসারি। সেটিও ছিল দলেরই বৈঠক।

পরে কংগ্রেসের সংখ্যালঘু মোর্চার প্রধান নাদিম জাভেদ বলেন, কাকে আমন্ত্রণ জানানো হবে, তা আহমেদ পটেল ও গুলাম নবি আজাদ চূড়ান্ত করছেন। আগামিকাল রাতের মধ্যে সেটি চূড়ান্ত হবে। শেষ পর্যন্ত রাহুল নিজেই ফোন করে প্রণববাবুকে আমন্ত্রণ জানান।

কংগ্রেস সূত্রে জানা যায়, প্রণববাবুর আরএসএসের মঞ্চে যাওয়া নিয়ে দলের মধ্যে অসন্তোষ রয়েছে। তবে শেষ পর্যন্ত সেই অসন্তোষের বাধা কাটিয়ে রাহুল নিজেই ফোন করে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন প্রণববাবুকে।

আজ দুপুরে এআইসিসি দফতরে কংগ্রেসের সেবাদলের বৈঠকেও যোগ দেন রাহুল। সেখানেও বলেন, আরএসএস ধর্ম, জাতিভেদ ও লিঙ্গবৈষম্যে বিশ্বাসী। সংবিধান ও সাংবিধানিক সংস্থার স্বাধীনতাও তারা খর্ব করতে চায়। কংগ্রেসের এক নেতা বলেন, ঠিক যে ভাবে আরএসএস আসলে নেপথ্যে থেকে বিজেপিকে রাজনৈতিক ভাবে সাহায্য করে, সেবাদলও সেই ভূমিকা নিতে পারে কংগ্রেসের জন্য। 

তাঁর দাবি, আরএসএসের কালো টুপি বনাম সেবাদলের সাদা টুপির লড়াই হবে।

সূত্র: আনন্দবাজার পত্রিকা

মন্তব্য

মতামত দিন

এশিয়া পাতার আরো খবর

কেরালায় বন্যা-ভূমিধসে তিন শতাধিক নিহত, রেড অ্যালার্ট জারি বিমানবন্দর বন্ধ

আন্তর্জাতিক ডেস্কআরটিএনএনকেরালা: ভারতের দক্ষিণাঞ্চলীয় রাজ্য কেরালায় টানা বৃষ্টির কারণে সৃষ্ট বন্যা ও ভূমিধসে কয়েক দিনে ৩ . . . বিস্তারিত

চলে গেলেন ভারতের সাবেক প্রধানমন্ত্রী অটলবিহারি বাজপেয়ি

আন্তর্জাতিক ডেস্কআরটিএনএননয়া দিল্লি: ভারতের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ও সুপরিচিত রাজনীতিকদের একজন অটল বিহারী বাজপেয়ী মারা গেছ . . . বিস্তারিত

 

 

 

 

 

 



ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: ড. সরদার এম. আনিছুর রহমান,
ফোন: +৮৮০-২-৮৩১২৮৫৭, +৮৮০-২-৮৩১১৫৮৬, ফ্যাক্স: +৮৮০-২-৮৩১১৫৮৬, নিউজ রুম মোবাইল: +৮৮০-১৬৭৪৭৫৭৮০২; ই-মেইল: rtnnimage@gmail.com