কলকাতায় অভিনেত্রীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

১০ মার্চ,২০১৮

কলকাতায় অভিনেত্রীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

বিনোদন ডেস্ক
আরটিএনএন
কলকাতা: পশ্চিমবঙ্গের কলকাতার রিজেন্ট পার্ক থানা এলাকা থেকে টালিগঞ্জের এক অভিনেত্রীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। শুক্রবার রাতে ঘটনাটি ঘটেছে। ওই অভিনেত্রী (২৩) গত কয়েক বছর ধরে ওই এলাকাতেই থাকতেন।

জানা যায়, যে বাড়িতে তিনি থাকতেন শুক্রবার সেই বাড়ি থেকেই রিজেন্ট পার্ক থানার পুলিশ তার ঝুলন্ত মৃতদেহ উদ্ধার করে। দেশটির পুলিশ জানিয়েছে, মৃতার নাম মৌমিতা সাহা। তিনি হুগলির ব্যান্ডেলের বাসিন্দা। অভিনয়ের সূত্রেই তিনি রিজেন্ট পার্ক থানা এলাকার ওই বাড়িতে থাকতেন। সেখান থেকে নিয়মিত কাজে যেতেন বলে স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে।

প্রাথমিক তদন্তের পর পুলিশের অনুমান, ওই অভিনেত্রী আত্মহত্যা করেছেন। কী কারণে আত্মঘাতী হলেন, তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ।

কলকাতার নায়িকা হতে চলেছেন মিথিলা!
ঢাকা: ক্যারিয়ারের নাটক, গান, মডেলিং, বিজ্ঞাপন কি করেননি রাফিয়াথ রশিদ মিথিলা। তবে চলচ্চিত্রে দেখা না গেলেও প্রথমবারের মত তাকে এবার দেখা যাবে কলকাতার একটি স্বল্পদৈর্ঘ্য ছবিতে। স্বল্পদৈর্ঘ্য ছবিটির নাম ‘মুখোমুখি’। কলকাতার নির্মাতা পার্থ সেনের এ ছবির শুটিংয়ে অংশ নিতে সম্প্রতি কলকাতা গিয়েছিলেন মিথিলার।

এতে তার বিপরীতে অভিনয় করছেন ফেলুদাখ্যাত অভিনেতা সব্যসাচী চক্রবর্তীর ছেলে গৌরব চক্রবর্তী। ২০ জানুয়ারি ছবির শুটিং শুরু হয়। ছবিতে নিজের চরিত্র সম্পর্কে মিথিলা জানান, ‌‘মুখোমুখি’ নামের এ ছবিতে বাংলাদেশী এক মেয়ের চরিত্রে অভিনয় করছি। যে কিনা চলচ্চিত্র, আলোকচিত্র নিয়ে কাজ করে। একপর্যায়ে পেশাগত কারণে সে কলকাতায় যায়। ওখানে গিয়ে তার পরিচয় হয় এক ছেলের সঙ্গে। তারপর ধীরে ধীরে তাদের মধ্যে একটা বোঝাপড়া তৈরি হয়।

কলকাতার এই স্বল্পদৈর্ঘ্য ছবিটিতে কাজ করার কারণ হিসেবে মিথিলা বলেন, অনেকগুলো কারণ রয়েছে, প্রথমত গল্পটা ভালো। দ্বিতীয়ত. নির্মাতা হিসেবে পার্থ সেনের খ্যাতি রয়েছে। এছাড়া যারা যারা অভিনয় করবেন, তাদেরও আমার পছন্দ হয়েছে। এর বাইরে ভিন্ন ধরনের একটা অভিজ্ঞতা যুক্ত হবে ক্যারিয়ারে, এজন্যই কাজটি করা।

এদিকে জানা যায় রেডিওতে শিশুদের নিয়ে একটি অনুষ্ঠান করতে যাচ্ছেন মিথিলা। এই প্রসঙ্গে মিথিলা বলেন, মার্চের দিকে এর প্রচার শুরু হয়ে যাবে। ১৩ পর্বের এ অনুষ্ঠানটি মূলত শিশুদের বিষয়ে অভিভাবকদের জন্য নির্মিত। এর নাম ‘বেড়ে ওঠার গল্প’।

এর আগে ছোট পর্দার জনপ্রিয় অভেনেত্রী রাফিয়াথ রশিদ মিথিলা যখন ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়ে স্নাতকোত্তর পর্ব শুরু করেন, তখন তার মেয়ের বয়স মাত্র এক বছর।

আর সে সময়ে সংসার, চাকরি, অভিনয় ঠিক রেখে মিথিলা পড়ালেখাটা চালিয়ে গেছেন। ফলাফল, স্নাতকোত্তরে সিজিপিএ-৪ পেয়ে চ্যান্সেলর গোল্ড মেডেল অর্জন করেছেন এই তারকা।

২০১৪-১৬ স্নাতকোত্তর শিক্ষাবর্ষে সব বিভাগের মধ্যে একমাত্র মিথিলাই সর্বোচ্চ এই সিজিপিএ পেয়েছেন। অভিনয় ও সংগীতশিল্পী হিসেবে সুনাম কুড়ানোর পর পড়ালেখায়ও দেখালেন মুনশিয়ানা।

ব্র্যাক বিশ্ববিদ্যালয়ের ইনস্টিটিউট অব এডুকেশনাল ডেভেলপমেন্ট থেকে আরলি চাইল্ডহুড বিষয়ে পড়েছেন তিনি।

বিশ্ববিদ্যালয়ের ১১তম সমাবর্তন অনুষ্ঠানে শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদের হাত থেকে স্বর্ণপদক গ্রহণ করেন মিথিলা।

মিথিলা বলেন, ‘সবকিছু সামাল দিয়েই লেখাপড়াটা করতে হয়েছে আমাকে। তবে পড়ার বিষয় ছিল আমার চাকরি ও ব্যক্তিগত জীবনের খুব কাছাকাছি, মজার।’

তাই আগ্রহ নিয়ে পড়েছি। এ কারণেই ফল ভালো হয়েছে। বাবা ও মায়ের সহযোগিতা ছাড়া তার পক্ষে স্নাতকোত্তর শেষ করা সম্ভব ছিল না বলেও জানান এই অভিনেত্রী।

সমাবর্তনে তার সাড়ে তিন বছরের মেয়ে আইরাকে সঙ্গে নিয়ে পদক গ্রহণ করেন মিথিলা। তিনি বলেন, ‘মেয়েকে সঙ্গে নিয়ে পদক নিয়েছি। এর চেয়ে সুখের আর কী হতে পারে!’

উল্লেখ্য, ২০০৪ সাল থেকে প্রেম করে ২০০৬ সালের ৩ আগস্ট এক সুতোয় বাঁধা পড়ল তাহসান-মিথিলা। বর্তমানে তাদের এক কন্যা সন্তান রয়েছে।

মন্তব্য

মতামত দিন

বিনোদন পাতার আরো খবর

‘ভারত’১১৮ প্রেক্ষাগৃহে,‘বাংলাদেশ’ এক!

বিনোদন ডেস্কআরটিএনএনঢাকা: ঈদ উৎসব শেষে টানা এক মাস পর আজ দেশের প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পাচ্ছে দুটি ছবি। একটি ভারতীয়, অন্যটি . . . বিস্তারিত

‘অপহরণকারীকে আমার প্রেমে পড়তে বাধ্য করেছিলাম’

বিনোদন ডেস্কআরটিএনএনলন্ডন: যুক্তরাজ্যের মডেল ক্লোয়ি এইলিংকে গতবছর ইটালিতে অপহরণ করে ছয়দিন আটকে রাখা হয়। কিন্তু যখন তি . . . বিস্তারিত

 

 

 

 

 

 



ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: ড. সরদার এম. আনিছুর রহমান,
ফোন: +৮৮০-২-৮৩১২৮৫৭, +৮৮০-২-৮৩১১৫৮৬, ফ্যাক্স: +৮৮০-২-৮৩১১৫৮৬, নিউজ রুম মোবাইল: +৮৮০-১৬৭৪৭৫৭৮০২; ই-মেইল: rtnnimage@gmail.com