সানিয়ার চোখে সেরা পুরুষ কে?

১৯ নভেম্বর,২০১৭

টেনিস তারকা সানিয়া মির্জা-ফাইল ফটো

খেলা ডেস্ক
আরটিএনএন
ঢাকা: টেনিস কোর্ট দাপিয়ে বেড়ানো সানিয়া মির্জা যখন পাকিস্তানি ক্রিকেটার শোয়েব মালিককে বিয়ে করেন, তখন বহু যুবকেরই হৃদয় ভাঙে। কারণ সানিয়া তো কেবল মাঠের কোর্টে না তাদের মন বারান্দাটাও দাপিয়ে বেড়াতেন।

সে যাই হোক, ২০১০ সালে বিয়ের বন্ধনে জড়ানোর পর অনেকটা সময় পাড়ি দিয়ে এখনও কি সানিয়ার চোখে শোয়েবই সেরা। তার স্টাইলই কি বিমোহিত করে সানিয়াকে? নাকি অন্য কারো দিকে নজর পড়েছে সানিয়ার?

এমন প্রশ্নের জবাব পেতে একটু টাইম মেশিনে চড়ে কয়েক দিন আগে দুবাইয়ের একটি ফ্যাশন প্রদর্শনীতে চলে যেতে হবে।

কারণ ওই প্রদর্শনীতেই নিজের চোখের সেরা পুরুষের নাম বলেছেন সানিয়া।

সানিয়ার বোন আমেনা মির্জা দুবাইয়ের ওই ফ্যাশন প্রদর্শনীর আয়োজন করেছিলেন।

সেখানেই স্বামী শোয়েবের লুকস নিয়ে প্রশংসায় মাততে দেখা গেছে সানিয়াকে। জানিয়েছেন শোয়েবই তার চোখের সেরা পুরুষ।

এ ছাড়া সম্প্রতি পাকিস্তানের স্টাইল আইকন হওয়ার জন্য পুরস্কার পেয়েছিলেন শোয়েব মালিক। সেই অনুষ্ঠানে সানিয়াকে জিজ্ঞাসা করা হয়েছিল, শোয়েব যখন ট্যুরে যান, তখন ওয়ার্ডরোব কে সামলায়?

এই প্রশ্নের উত্তর দিতে গিয়েই সানিয়া জানান, ‘আমি মোটেই পক্ষপাতিত্ব করছি না! তবে শোয়েব কিন্তু সত্যিই সুদর্শন। ওকে অনুসরণ করা সহজ! ফিটনেস বেশ ভালো। টল অ্যান্ড হ্যান্ডসাম। ওই সব থেকে আকর্ষণীয়। প্রায় সব পোশাক ওকে মানায়। ওকে সুন্দর দেখানোর সব কৃতিত্ব আমি নিতে পারি না। তবে পোশাক নির্বাচনের বিষয়ে ওকে মাঝে মাঝে টিপস দিয়ে থাকি।

এদিকে বুধবার সানিয়া মির্জা ৩০ বছর পূর্ণ করেছেন।

স্ত্রীর জন্মদিনে এক টুইটবার্তায় শোয়েব বলেছেন, আমার সুন্দরী স্ত্রীকে জন্মদিনের শুভেচ্ছা জানালাম। তোমায় মিস করছি।

এর আগে তার ‘লাভ লাইফ’ নিয়ে মুখ খুলে ছিলেন সানিয়া। শোয়েব মালিকের সঙ্গে বিয়ে হওয়ার পর প্রথমবার নিজের সম্পর্ক নিয়ে মুখ খোলেন এই টেনিস তারকা।

‘নো ফিল্টার নেহা’ এই টক-শোয়ে অতিথি হিসেবে এসে মনের কথা খোলাখুলি জানান সানিয়া মির্জা। হায়দরাবাদি কন্যার ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে প্রশ্ন ছোড়া হতেই এই টেনিস সুন্দরী জানিয়ে দেন, সম্পর্ক নিয়ে তিনি মোটেও নিরাপত্তাহীনতায় ভোগেন না। তিনি যে কোনও সম্পর্ক নিয়ে একটু বেশি মাত্রাতেই পজেসিভ।

‘নো ফিল্টার নেহা’ শোয়ের সঞ্চালক অভিনেত্রী নেহা ধুপিয়া সেখানেই টেনিস সুন্দরীর কাছে তার লাভ লাইফ সম্পর্কে জানতে চেয়েছিলেন। নিজেকে যদি কিছু পরামর্শ দেওয়ার থাকে, তাহলে সেটা কী পরামর্শ দিতে চান, তাও জানতে চাওয়া হয়েছিল সানিয়ার কাছে।

ভারতের টেনিস কন্যার দাবি, তিনি তার ভালবাসার সম্পর্ক নিয়ে মোটেও নিরাপত্তাহীনতায় ভোগেন না, বরং তিনি প্রয়োজনের চেয়ে একটু বেশি মাত্রাতেই পজেসিভ। সেই পজেসিভনেসটা কমানো প্রয়োজন বলেও তিনি মন্তব্য করেন।

সম্পর্কের উন্নতি কীভাবে হয়? সানিয়া মনে করেন, নিজেদের মধ্যে যদি কোনও সমস্যা হয়, তাহলে পার্টনারের সঙ্গে কথা বলে তা মিটিয়ে নেওয়া উচিত। ঠিক ভাবে কথা বললে সব সমস্যার সমাধানই সম্ভব।

মন্তব্য

মতামত দিন

টেনিস পাতার আরো খবর

‘বছরের পর বছর বাবা আমার ওপর নির্যাতন চালায়’

খেলা ডেস্কআরটিএনএনঢাকা: ১৬ বছর বয়সে সফলতা লাভ করেন ইয়েলেনা ডকিচ, তবে এর পেছনে চরম মূল্য দিতে হয় তাকে। য়ুগোস্লাভিয়ায . . . বিস্তারিত

এটিপি ফাইনালে নিশ্চিত নন নাদাল

খেলা ডেস্কআরটিএনএনঢাকা: বছরের শেষ টুর্ণামেন্ট এটিপি ট্যুর ফাইনালের প্রথম ম্যাচে খেলার ব্যপারে আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন রাফায় . . . বিস্তারিত

 

 

 

 

 

 



ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: ড. সরদার এম. আনিছুর রহমান,
ফোন: +৮৮০-২-৮৩১২৮৫৭, +৮৮০-২-৮৩১১৫৮৬, ফ্যাক্স: +৮৮০-২-৮৩১১৫৮৬, নিউজ রুম মোবাইল: +৮৮০-১৬৭৪৭৫৭৮০২; ই-মেইল: rtnnimage@gmail.com