কোটা আন্দোলনকারীদের জিডি গ্রহণে ‘সময় চায়’ পুলিশ!

১৬ মে,২০১৮

কোটা আন্দোলনকারীদের জিডি নিতে ‘সময় চায়’ পুলিশ

নিজস্ব প্রতিবেদক
আরটিএনএন
ঢাকা: কোটা সংস্কার আন্দোলনকারীরা তাদের জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে করা জিডির(সাধারণ ডায়েরি) কপি শাহবাগ থানা পুলিশ গ্রহণ করছে না বলে অভিযোগ উঠেছে।

বুধবার দুপুর ২টার দিকে জিডির কপিসহ তাদের ফিরিয়ে দেন শাহবাগ থানার ওসি আবুল হাসান।

প্রত্যক্ষদর্শীদের সূত্রে জানা যায়, দুপুর ২টার দিকে শতাধিক আন্দোলনকারী নিয়ে শাহবাগ থানায় জিডি করতে যান কোটা সংস্কার আন্দোলনকারী নেতারা।

থানায় পৌঁছালে শাহবাগ থানা পুলিশ ওসি আবুল হাসান তাদের একটি কপি দিয়ে জিডি করতে বলেন। একপর্যায়ে তারা কোটা সংস্কার আন্দোলনকারী ৪ নেতা এবং সাধারণ আন্দোলনকারীর নিরাপত্তার জন্য মোট ৫টি জিডি কপি পূরণ করেন।

কপি পূরণ করার পর শাহবাগ থানা ওসির কাছে জমা দিতে চাইলে থানার ওসি সেটি গ্রহণ করতে অস্বীকৃতি জানান।

এই সময় তিনি অন্য রুমে গিয়ে ফোনে কথা বলে এসে আন্দোলনকারীদের জানান জিডি গ্রহণ করতে সময় লাগবে। এখন নেওয়া যাবে না।

কোটা সংস্কার আন্দোলনের যুগ্ম-আহ্বায়ক নুরূল হক নূর বলেন, আমরা জীবনের নিরাপত্তা নিয়ে শংকিত। কিন্তু রাষ্ট্রের দায়িত্ব তাদের নাগরিকের নিরাপত্তা দেওয়া। কিন্তু আমরা শাহবাগ থানা জিডি করতে গেলেও তারা সেটা গ্রহণ করেনি।

শাহবাগ থানার ওসি আবুল হাসান বলেন, এই জিডিতে ছাত্রসংগঠন জড়িত আছে। বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন আছে। আমাদের এই জিডি গ্রহণ করতে সময় লাগবে।

এর আগে কোটা সংস্কার আন্দোলনে নেতৃত্ব দেওয়া সংগঠন সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের যুগ্ম আহ্বায়ক নুরূল হক নূর এবং আরেক যুগ্ম-আহ্বায়ক রাশেদ খানের উপর সশস্ত্র হামলা করতে আসেন ছাত্রলীগের নেতারা। মঙ্গলবার রাতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মুহসিন হলের ১১৯ নম্বর রুমে এ ঘটনা ঘটে। এতে তারা জীবন নিয়ে আশঙ্কা বোধ করছেন বলে সাংবাদিকদের জানিয়েছেন। এর পরিপ্রেক্ষিতে নিরাপত্তা চেয়ে তারা শাহবাগ থানায় জিডি করতে যান।

মন্তব্য

মতামত দিন

শিক্ষাঙ্গন পাতার আরো খবর

নর্থ সাউথ ও ইস্ট ওয়েস্ট ইউনিভার্সিটির ১২ ছাত্রের জামিন নামঞ্জুর

নিজস্ব প্রতিবেদকআরটিএনএনঢাকা: রাজধানীতে নিরাপদ সড়কের দাবিতে আন্দোলনের সময় পুলিশের কাজে বাধা দেয়ার মামলায় নর্থ সাউথ ও ইস্ . . . বিস্তারিত

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রলীগের দুই পক্ষে হাতাহাতি

নিজস্ব প্রতিনিধিআরটিএনএনঢাবি: ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রলীগের দুই পক্ষের সমর্থকদের মধ্যে হাতাহাতির ঘটনা ঘটেছে। ছাত্রলীগের . . . বিস্তারিত

 

 

 

 

 

 



ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: ড. সরদার এম. আনিছুর রহমান,
ফোন: +৮৮০-২-৮৩১২৮৫৭, +৮৮০-২-৮৩১১৫৮৬, ফ্যাক্স: +৮৮০-২-৮৩১১৫৮৬, নিউজ রুম মোবাইল: +৮৮০-১৬৭৪৭৫৭৮০২; ই-মেইল: rtnnimage@gmail.com