ফেনীতে বন্দুকযুদ্ধে ধর্ষণ মামলার আসামী নিহত

১৬ মে,২০১৮

ফেনীতে বন্দুকযুদ্ধে ধর্ষণ মামলার আসামী নিহত

নিজস্ব প্রতিনিধি
আরটিএনএন
ফেনী: ফেনী জেলার দাগনভূঁঞা উপজেলায় পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে মুসা আলম মাসুদ নামে এক ধর্ষণ মামলার আসামী নিহত হয়েছেন।

বুধবার (১৬ মে) রাত ৩টার দিকে উপজেলার জয়লষ্কর ইউনিয়নের খুশীপুর ব্রিজ এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

ঘটনাস্থল থেকে তিন রাউন্ড গুলিসহ একটি বিদেশি পিস্তল উদ্ধার করা হয়। নিহত মাসুদ দাগনভূঁঞা উপজেলার জয়লষ্কর ইউনিয়নের খুশীপুর এলাকার শাহ আলমের ছেলে।

দাগনভূঁঞা থানার ওসি আবুল কালাম আজাদ জানান, তথ্যের ভিত্তিতে রাতে পুলিশ ওই এলাকায় অভিযান চালায়। এসময় সন্ত্রাসী মাসুদ পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে গুলি ছুড়তে থাকে। পুলিশও পাল্টা গুলি ছুড়লে একপর্যায়ে মাসুদ গুলিবিদ্ধ হয়ে ঘটনাস্থলেই মারা যায়।

ওসি আরো জানান, মাসুদের বিরুদ্ধে দাগনভূঁঞা থানায় দুইটি ধর্ষণ, দুইটি ডাকাতি ও হত্যা মামলাসহ ছয়টি মামলা রয়েছে।

ফেনীর আরো খবর...
ফেনীতে ট্রেন-কাভার্ডভ্যান সংঘর্ষে নিহত ৪
ফেনী: ফেনী জেলার ফতেহপুরে ট্রেনের ধাক্কায় কাভার্ডভ্যানের ৪ যাত্রী নিহত হয়েছেন। এ সময় আহত হয়েছেন আরো দুই যাত্রী। বুধবার ভোররাত সাড়ে ৪টার দিকে ফতেহপুর রেলগেইট এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে।

ঘটনার সত্যতা জানিয়েছেন ফেনী রেলওয়ে স্টেশনের স্টেশন মাস্টার মাহবুবুর রহমান।

তাৎক্ষণিকভাবে হতাহতদের পরিচয় নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

ফেনী রেলওয়ে পুলিশের ইনচার্জ আবদুল আলিম জানান, ঢাকা থেকে চট্টগ্রামগামী আন্তঃনগর ট্রেন তূর্ণা নিশিথা ফেনী রেলওয়ে স্টেশনের কাছে বারাহীপুর ক্রসিংয়ে রেললাইনে উঠে পড়া একটি একটি কাভার্ডভ্যানকে ধাক্কা দিলে হতাহতের এ ঘটনা ঘটে।

ইনচার্জ জানান, ট্রেনের ধাক্কায় কাভার্ডভ্যানটি দুমড়ে-মুচড়ে রেল লাইনের পাশে ছিটকে পড়ে। এতে কভার্ডভ্যানের চালকসহ তিনজন ঘটনাস্থলেই মারা যান। পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা আহত অবস্থায় তিনজনকে উদ্ধার করে ফেনী সদর হাসপাতালে পাঠিয়েছে। তাদের একজন পরে কুমিল্লা নেয়ার পথে মারা যান।

তবে এ ঘটনার পর ঢাকা-চট্টগ্রাম রেলপথে ট্রেন চলাচল স্বাভাবিক রয়েছে। মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হবে বলে মাহবুবুর রহমান।

সাতক্ষীরায় মর্মান্তিক সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৬

এদিকে মঙ্গলবার (২০ মার্চ) রাত সাড়ে ৮টার দিকে সাতক্ষীরা-খুলনা মহাসড়কের শাকদহা এলাকায় বাস ও পিকআপের মুখোমুখি সংঘর্ষে ছয়জন নিহত হয়েছেন। এ সময় আহত হয়েছেন আরো ১০ জন।

পুলিশ হতাহতদের উদ্ধার করে সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে পাঠিয়েছে। নিহত ব্যক্তিরা হলেন সাতক্ষীরার কালীগঞ্জ উপজেলার কালিকাপুর গ্রামের মো. আশিকুজ্জামান (১২), তার বোন মিম (৩) ও তাদের মা আকলিমা খাতুন, নূর বানু, সাইদুল ইসলাম ও সাব্বির হোসেন। তারা সবাই একই পরিবারভুক্ত বলে জানা গেছে।

পাটকেলঘাটা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোল্লা জাকির হোসেন জানান, কয়েকজন যাত্রী নিয়ে পিকআপটি সাতক্ষীরা থেকে খুলনা অভিমুখে যাচ্ছিল। এ সময় যাত্রীবাহী একটি বাস সাতক্ষীরার দিকে আসছিল। তালা উপজেলার পাটকেলঘাটার শাকদহা ব্রিজ পার হয়ে ভৈরবনগর আহসাননগরে আসতেই বাস ও পিকআপটির মধ্যে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলে মারা যান ছয়জন।

মন্তব্য

মতামত দিন

দেশজুড়ে পাতার আরো খবর

‘মাদকের সঙ্গে জড়িত কাউকে ছাড় দেয়া হবে না’

নিজস্ব প্রতিবেদকআরটিএনএনঢাকা: আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, মাদকের সঙ্গ . . . বিস্তারিত

লড়াই ছাড়া বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় সাংসদ হচ্ছেন খালেকের স্ত্রী

নিজস্ব প্রতিনিধিআরটিএনএনবাগেরহাট: লড়াই ছাড়া সাংসদ হচ্ছেন খুলনার নব নির্বাচিত মেয়র আলহাজ তালুকদার আবদুল খালেকের স্ত্রী হা . . . বিস্তারিত

 

 

 

 

 

 



ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: ড. সরদার এম. আনিছুর রহমান,
ফোন: +৮৮০-২-৮৩১২৮৫৭, +৮৮০-২-৮৩১১৫৮৬, ফ্যাক্স: +৮৮০-২-৮৩১১৫৮৬, নিউজ রুম মোবাইল: +৮৮০-১৬৭৪৭৫৭৮০২; ই-মেইল: rtnnimage@gmail.com