হবিগঞ্জে মসজিদের ইমাম পরিবর্তন নিয়ে সংঘর্ষে নিহত ২

১২ আগস্ট,২০১৭

নিজস্ব প্রতিনিধি
আরটিএনএন
হবিগঞ্জ: হবিগঞ্জ জেলার বাহুবলে মসজিদের কমিটি গঠন ও ইমাম পরিবর্তনকে কেন্দ্র করে  গ্রামবাসীর মধ্যে সংঘর্ষে দুই জন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরো অর্ধশতাধিক।

শনিবার সকাল সাড়ে ৭টার দিকে উপজেলার সাতকাপন ইউনিয়নের মুগকান্দি গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন- মুগকান্দি গ্রামের সাবু মিয়ার ছেলে কবির আখনঞ্জী (৪৫) ও একই গ্রামের মতিন মিয়া (৫০)।

স্থানীয়রা জানায়, উপজেলার সাতকাপন ইউনিয়নের মুগকান্দি জামে মসজিদের কমিটি গঠন ও ইমাম পরিবর্তনকে কেন্দ্র করে দু’পক্ষে বিরোধ চলছিল। এর জের ধরে শুক্রবার জুম্মার নামাজে সাতকাপন ইউপি চেয়ারম্যান মুগকান্দি গ্রামের আবদাল মিয়া আখনঞ্জী গ্রুপের সোহেল মিয়ার সঙ্গে একই গ্রামের শফিক মাস্টারের বাকবিতণ্ডা হয়। পরে বাদ জুম্মা উভয় পক্ষ দেশিয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। সংঘর্ষে উভয় পক্ষের নারী-শিশুসহ অর্ধশতাধিক আহত হয়।

শনিবার সকালেও তারা ফের সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এই সংঘর্ষে ঘটনাস্থলে একজন নিহত হন। পরে সিলেট মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নেয়ার পথে আরো একজনের মৃত্যু হয়। সংঘর্ষে নারীসহ অর্ধশতাধিক লোকজন আহত হয়। আহতদের উদ্ধার করে বাহুবল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

এ ব্যাপারে বাহুবল-নবীগঞ্জ সার্কেলের সিনিয়র এএসপি রাসেলুর রহমান জানান, সংঘর্ষ নিয়ন্ত্রণে প্রায় ১০০ রাউন্ড শটগানের গুলি ও ২৫ রাউন্ড কাঁদানে গ্যাস নিক্ষেপ করা হয়। ফের সংঘর্ষের আশষ্কায় ঘটনাস্থলে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

তিনি আরো জানান, নিহতদের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। বর্তমানে পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে।

মন্তব্য

মতামত দিন

দেশজুড়ে পাতার আরো খবর

ছ’মাসের অন্তঃসত্ত্বা হাসিনা সাত দিন ধরে হাঁটছেন

নিউজ ডেস্কআরটিএনএনঢাকা: একটি বাঁশের লাঠি ধরে খুঁড়িয়ে খুঁড়িয়ে হাঁটছিলেন হাসিনা বেগম। তিনি ছ’মাসের অন্তঃসত্বা। ট . . . বিস্তারিত

আবহাওয়া আর অনাহার অসুস্থ করে দিচ্ছে পালংখালির রোহিঙ্গাদের

নিউজ ডেস্কআরটিএনএনঢাকা: কক্সবাজার সীমান্তে নতুন করে আসা হাজার হাজার রোহিঙ্গা, দুদিনের বেশী সময় ধরে খোলা আকাশের নিচে রোদ . . . বিস্তারিত

 

 

 

 

 

 



ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: ড. সরদার এম. আনিছুর রহমান, গোলাম রসুল প্লাজা (তৃতীয় তলা), ৪০৪ দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০।
ফোন: +৮৮০-২-৮৩১২৮৫৭, +৮৮০-২-৮৩১১৫৮৬, ফ্যাক্স: +৮৮০-২-৮৩১১৫৮৬, নিউজ রুম মোবাইল: +৮৮০-১৬৭৪৭৫৭৮০২; ই-মেইল: rtnnimage@gmail.com