ইসলামি জলসার মাঠে ১৪৪ ধারা

১৬ ফেব্রুয়ারি,২০১৭

নিজস্ব প্রতিনিধি
আরটিএনএন
বগুড়া: বগুড়ার নন্দীগ্রামে একই স্থানে পাল্টাপাল্টি ইসলামি জলসার আয়োজন করায় দুইপক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ এড়াতে ১৪৪ ধারা জারি করেছে স্থানীয় প্রশাসন।

শুক্রবার সকাল থেকে শনিবার সকাল পর্যন্ত নন্দীগ্রামের তারাটিয়া স্কুল মাঠে ১৪৪ ধারা জারি করা হয়। শুক্রবার ওই ইসলামি জলসা অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোসাম্মদ শরীফুন্নেসা এ তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

জানা গেছে, স্থানীয় জামিয়া তারাটিয়া কওমী মাদরাসার মুহতামিম আফজাল হোসেন শুক্রবার আসরের নামাজের পর তারাটিয়া স্কুল মাঠে ইসলামি জলসার আয়োজন করেন। সেখানে স্থানীয় সংসদ সদস্য রেজাউল করিম তানসেনকে প্রধান অতিথি ও নুরুল ইসলামকে সভাপতি করা হয়।

মাদরাসার লোকজন সব প্রস্তুতি সম্পন্ন করলে হঠাৎ করে এলাকাবাসীর পক্ষে মুক্তিযোদ্ধা আবদুস সামাদ ও ওয়াশিম উদ্দিন একই সময় একই মাঠে পাল্টা ইসলামি জলসার ঘোষণা দেন। এতে দুই পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষের সম্ভাবনা দেখা দিলে প্রশাসন ১৪৪ ধারা জারি করে।

মাদরাসার প্রধান আফজাল হোসেন জানান, ১৯৯৩ সাল থেকে তিনি ইসলামি জলসার আয়োজন করে আসছেন। এ ধারাবাহিকতায় এবার তিনি ইসলামি জলসার আয়োজন করেন।

তিনি আরো জানান, ওই এলাকার মুক্তিযোদ্ধা সামাদ ও ওয়াশিম জলসায় ভারতের ফুরফুরা দরবার শরীফের এক পীরকে অতিথি করার প্রস্তাব দেন। তার প্রস্তাবে রাজি না হওয়াতে তিনি পাল্টা জলসার ঘোষণা দেন। ওই জলসায় তিনি কৌশলে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি জাহেদুল ইসলামকে প্রধান অতিথি করেন।

এ ব্যাপারে মুক্তিযোদ্ধা ওয়াশিম উদ্দিন জানান, কওমী মাদরাসার লোকজন মিলাদ এবং জিকির পছন্দ করেন না। এ কারণে জলসায় এক পীরকে রাখার প্রস্তাব দিলেও মাদরাসার প্রধান রাজি হননি। তাই এলাকাবাসীর পক্ষে ওই স্কুল মাঠে তারা পাল্টা ইসলামি জলসার আয়োজন করে।

মন্তব্য

মতামত দিন

দেশজুড়ে পাতার আরো খবর

শীত থেকে বাঁচতে আগুনে পুড়ছে মানুষ!

নিজস্ব প্রতিবেদকআরটিএনএনঢাকা: বাংলাদেশে তীব্র শীতে উষ্ণতার জন্য আগুন পোহাতে গিয়ে অগ্নিদগ্ধ হওয়ার ঘটনা অনেক বেড়ে গেছে। . . . বিস্তারিত

মিডিয়া ও নাস্তিকরা আমার কথার মর্মার্থ বুঝতে পারেনি: আল্লামা শফী

নিজস্ব প্রতিনিধিআরটিএনএনচট্টগ্রাম: মিডিয়া ও নাস্তিকরা আমার কথার মর্মার্থ বুঝতে পারেনি আর না বুঝেই আমার সমালোচনা করেছে বল . . . বিস্তারিত

 

 

 

 

 

 



ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: ড. সরদার এম. আনিছুর রহমান,
ফোন: +৮৮০-২-৮৩১২৮৫৭, +৮৮০-২-৮৩১১৫৮৬, ফ্যাক্স: +৮৮০-২-৮৩১১৫৮৬, নিউজ রুম মোবাইল: +৮৮০-১৬৭৪৭৫৭৮০২; ই-মেইল: rtnnimage@gmail.com