নারায়ণগঞ্জে শিশু খাদিজাকে ধর্ষণের পর হত্যায় চারজনের ফাঁসি

১১ জুন,২০১৮

নারায়ণগঞ্জে শিশু খাদিজাকে ধর্ষণের পর হত্যায় চারজনের মৃত্যদণ্ড

নিজস্ব প্রতিনিধি
আরটিএনএন
ঢাকা: নারায়ণগঞ্জের আলোচিত শিশু খাদিজাকে ধর্ষণের পর হত্যার দায়ে চারজনের বিরুদ্ধে ফাঁসিতে ঝুলিয়ে মৃত্যুদণ্ডাদেশ দিয়েছে আদালত।

সোমবার (১১ জুন) দুপুর পৌনে ১২টায় আদালত এ আদেশ দেয়।

বিস্তারিত আসছে...

আরো পড়ুন...
নারায়ণগঞ্জে ছিনতাই মামলার আসামি ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত
নারায়ণগঞ্জ: নারায়ণগঞ্জ জেলার সদর উপজেলার ফতুল্লায় পুলিশের একটি অস্ত্র খোয়া ও পরে সেটা উদ্ধারের ঘটনায় দায়ের হওয়া মামলার আসামি বন্দুকযুদ্ধে নিহত হয়েছে।

ছিনতাইকারী দুই গ্রুপের গোলাগুলির সময়ে পুলিশ সেখানে উপস্থিত হলে ত্রিপক্ষীয় ‘বন্দুকযুদ্ধে’ পারভেজ (৩০) নামে ওই আসামি নিহত হন।

মঙ্গলবার (১৫ মে) দিবাগত রাত ২টায় দাপা আলামিন নগর এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে ২ রাউন্ড গুলিভর্তি একটি রিভলবার ও ৩টি বড় ছোরা উদ্ধার করা হয়েছে।

নিহত পারভেজ ফতুল্লার দাপা পাইলট স্কুল এলাকার সোবহান মিয়ার ছেলে।

পুলিশ জানায়, রাত ২টার দিকে আলামিননগর এলাকায় দুইপক্ষের মধ্যে গোলাগুলির খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যায় পুলিশ। এ সময় পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছোড়া হয়। পুলিশও পাল্টা গুলি ছোড়লে পারভেজ নিহত হন। পারভেজ এলাকায় পুলিশের সোর্স হিসেবে পরিচিত।

ফতুল্লা মডেল থানার পরিদর্শক মজিবুর রহমান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, গত রবিবার (১৩ মে) রাতে ফতুল্লা রেলস্টেশন রোড এলাকায় দায়িত্ব পালনের সময় কনস্টেবল সোহেল রানার সঙ্গে থাকা একটি চাইনিজ রাইফেল খোয়া যায়। পরদিন অর্থাৎ সোমবার (১৪ মে) সকালে ওই এলাকার দাপা বালুর মাঠ সংলগ্ন একটি ডোবার পাশ থেকে রাইফেলটি উদ্ধার করা হয়।

এ ঘটনায় ফতুল্লা মডেল থানার এএসআই সুমন কুমার পাল, কনস্টেবল মাসুদ রানা, আরিফ ও সোহেল রানাকে দায়িত্বে অবহেলার জন্য প্রত্যাহার করা হয়।

পরে সুমন পাল বাদী হয়ে পারভেজসহ তিনজনকে আসামি করে সোমবার রাতে ফতুল্লা থানায় একটি মামলা করেন। মামলায় অভিযোগ আনা হয়, পারভেজ ওই অস্ত্রটি লুট করেছিল।

মন্তব্য

মতামত দিন

জাতীয় পাতার আরো খবর

নতুন মাদক আইনের টার্গেট গডফাদার-সিন্ডিকেট

নিউজ ডেস্কআরটিএনএনঢাকা: দেশে যে নতুন মাদক নিয়ন্ত্রণ আইন তৈরি করা হচ্ছে তার লক্ষ্য হবে মাদক ব্যবসার নিয়ন্ত্রণকারী গডফাদ . . . বিস্তারিত

সুপ্রিম কোর্টের ৫৮টি বেঞ্চ পুনর্গঠন করলেন প্রধান বিচারপতি

নিজস্ব প্রতিবেদকআরটিএনএনঢাকা: গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশের প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগ . . . বিস্তারিত

 

 

 

 

 

 



ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: ড. সরদার এম. আনিছুর রহমান,
ফোন: +৮৮০-২-৮৩১২৮৫৭, +৮৮০-২-৮৩১১৫৮৬, ফ্যাক্স: +৮৮০-২-৮৩১১৫৮৬, নিউজ রুম মোবাইল: +৮৮০-১৬৭৪৭৫৭৮০২; ই-মেইল: rtnnimage@gmail.com