নেপালের প্রধানমন্ত্রীকে শেখ হাসিনার ফোন

১২ মার্চ,২০১৮

নেপালের প্রধানমন্ত্রীকে শেখ হাসিনার ফোন

নিউজ ডেস্ক
আরটিএনএন
ঢাকা: নেপালে বিমান বিধ্বস্ত হওয়ার ঘটনায় দেশটির প্রধানমন্ত্রী খাদগা প্রসাদ শর্মাকে ফোন দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। নেপালের প্রধানমন্ত্রী গভীর শোক প্রকাশ করেছেন। শেখ হাসিনা বলেছেন, ত্রিভুবন বিমানবন্দর খোলার সঙ্গে সঙ্গে সাহায্যকারী দল পাঠাবে বাংলাদেশ।

সোমবার বাংলাদেশ সময় দুপুর আড়াইটার দিকে কাঠমান্ডুর ত্রিভুবন আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে বিধ্বস্ত হয় বেসরকারি এয়ারলাইনস ইউএস বাংলার একটি বিমান। ঢাকা থেকে রওনা দেওয়া বিমানটি ত্রিভুবন বিমানবন্দরে নামার সময় বিধ্বস্ত হয়। বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, এখন পর্যন্ত ৫০ জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে।

চারদিনের সফরে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এখন সিঙ্গাপুরে আছেন। সিঙ্গাপুরের প্রধানমন্ত্রী লি সিয়েন লুংয়ের আমন্ত্রণে তিনি এ সফর করছেন। গতকাল রোববার প্রধানমন্ত্রী সিঙ্গাপুরে পৌঁছেন।

বিমান বিধ্বস্ত হওয়ার খবর শুনে সিঙ্গাপুর থেকেই নেপালের প্রধানমন্ত্রীকে ফোন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকে গণমাধ্যমকে জানানো হয়, সিঙ্গাপুর সময় সন্ধ্যা ৭টা ৫০ মিনিটে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নেপালের প্রধানমন্ত্রী খাদগা প্রসাদ শর্মা অলির সঙ্গে টেলিফোনে কথা বলেন। নেপালের প্রধানমন্ত্রী হতাহতের ঘটনায় গভীর শোক প্রকাশ করেন।

খাদগা প্রসাদ শর্মা অলি জানান, দুর্ঘটনা ঘটার পর তিনি ঘটনাস্থলে ছুটে যান এবং প্রয়োজনীয় নির্দেশনা দেন।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেন, ‘ত্রিভুবন বিমানবন্দর খোলার সঙ্গে সঙ্গে তিনি সাহায্যকারী দল নেপালে পাঠাবেন।’ তিনি আরও বলেন, ‘প্রয়োজনীয় যত রকমের সাহায্য দরকার বাংলাদেশ তা করবে।’

একটি সূত্রে জানা গেছে, বিমানটিতে চারজন ক্রুসহ ৩২ জন বাংলাদেশি যাত্রী ছিলো। তাদের মধ্যে দুইজনের পরিচয় জানা গেছে। তারা হলেন- পরিকল্পনা কমিশনের সাধারণ অর্থনীতি বিভাগের সদস্য উম্মে সালমা ও নাজিয়া আফরিন চৌধুরী।

বিমানের পাইলট ক্যাপ্টেন হাফিজের কাছে গ্রাউন্ড থেকে সঠিক তথ্য পৌঁছাতে দেরি হওয়ায় এ দুর্ঘটনা ঘটে বলে একটি সূত্রে জানা গেছে।

নেপাল পুলিশের এসএসপি ফুলচাঁদ জোশি বলেন, আহত ৮জনকে উদ্ধার করে কাঠমাণ্ডু মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হলে সেখানে তাদের মৃত্যু হয়।

এদিকে ঘটনা তদন্তে একটি কমিটি গঠন করেছে সিভিল এভিয়েশন। আগামীকাল মঙ্গলবার তারা কাঠমাণ্ডু যাবেন বলে জানা গেছে।

নেপালের ভ্রমণ মন্ত্রণালয়ের যুগ্মসচিব সুরেশ আচার্য জানান, সোমবার বিকেলে বিধ্বস্ত হওয়া এই বিমানে ৪ ক্রুসহ ৭১ জন ছিলেন। তাদের মধ্যে ৩৭ জন পুরুষ, ২৭ জন নারী ও দুটি শিশু।

নেপালের কাঠমাণ্ডুর ত্রিভুবন আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে আজ দুপুর সোয়া দুইটার দিকে এই ঘটনায় সব ফ্লাইট বন্ধ ঘোষণা করেছে টিআইএ।


মন্তব্য

মতামত দিন

জাতীয় পাতার আরো খবর

শেখ হাসিনা বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউট উদ্বোধন আগামী বুধবার

নিউজ ডেস্কআরটিএনএনঢাকা: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নামে নামকরণকৃত বিশ্বের সর্ববৃহৎ বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউট . . . বিস্তারিত

উন্নয়নের ধারাবাহিকতা অব্যাহত রাখতে শিক্ষকদের সমর্থন চেয়েছেন প্রধানমন্ত্রী

নিউজ ডেস্কআরটিএনএনঢাকা: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশে উন্নয়নের বর্তমান ধারাবাহিকতা অব্যাহত রাখার স্বার্থে আগামী নির্বাচন . . . বিস্তারিত

 

 

 

 

 

 



ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: ড. সরদার এম. আনিছুর রহমান,
ফোন: +৮৮০-২-৮৩১২৮৫৭, +৮৮০-২-৮৩১১৫৮৬, ফ্যাক্স: +৮৮০-২-৮৩১১৫৮৬, নিউজ রুম মোবাইল: +৮৮০-১৬৭৪৭৫৭৮০২; ই-মেইল: rtnnimage@gmail.com