আমরা জানতে পারছি সিনহা শান্তি কমিটিতে ছিলেন, তিনি হিন্দু নন: অপু উকিল

১২ আগস্ট,২০১৭

নিজস্ব প্রতিবেদক
আরটিএনএন
ঢাকা: যুব মহিলা লীগের সাধারণ সম্পাদক অপু উকিল বলেছেন, ‘আমরা জানতে পারছি সুরেন্দ্র কুমার সিনহা স্বাধীনতার সময় শান্তি কমিটিতে ছিলেন। এ শান্তি কমিটির প্রধান লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য ছিলো হিন্দু নিধন।  একজন হিন্দু কিভাবে শান্তি কমিটিতে যোগ দেন? ফলে তিনি হিন্দু নন।’ 

তিনি আরো বলেন, ‘সুরেন্দ্র কুমার সিনহা ষড়যন্ত্র করছেন, তিনি বিএনপি সুরে কথা বলছেন। আমরা তার অপসারণ চাই।’

শনিবার বিকেলে কৃষিবিদ ইস্টটিটিউট মিলনায়তনে যুব মহিলা লীগ আয়োজিত আলোচনা সভায় অপু উকিল এসব কথা বলেন।

যুব মহিলা লীগের সভাপতি নাজমা আকতারের সভাপতিত্বে এতে বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগের যুব ও ক্রীড়া সম্পাদক হারুনুর রশীদ, কার্যনির্বাহী সদস্য পারভীন জামান কল্পনা, মেরিনা জাহান, যুব মহিলা লীগের সহ-সভাপতি জাকিয়া পারভীন মনি, কোহেলী কুদ্দুস মুক্তি, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক খোদেজা নাছরীন, জেদ্দা পারভীন খান রিমি, সাংগঠনিক সম্পাদক সালমা ভূঁইয়া চায়না, শারমিন সুলতানা লিলি ও শারমীন সুলতানা শরমী প্রমুখ।

প্রসঙ্গত, গত ৩ জুলাই সংবিধানের ষোড়শ সংশোধনী অবৈধ বলে রায় ঘোষণা করে সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ। ১ আগস্ট পূর্ণাঙ্গ রায় প্রকাশ করা হয়। এই রায়ে ষোড়শ সংশোধনী ছাড়াও দেশের শাসন ব্যবস্থা, সংসদ, নির্বাচন কমিশন, রাজনৈতিক সংস্কৃতি নিয়ে বেশ কিছু পর্যবেক্ষণ তুলে ধরা হয়েছে। সংসদকে অপরিপক্ক, অকার্যকর বলেও মন্তব্য করা হয় রায়ে। রায়ের পর্যবেক্ষণে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে অবমাননার অভিযোগও করছে সরকার।

এর প্রেক্ষিতে ক্ষেপেছে শাসক দলের মন্ত্রী, এমপি ও নেতারা। মন্ত্রীসভার বৈঠকে এই রায়ের বিরুদ্ধে জনমত গঠনের পরামর্শ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। খাদ্যমন্ত্রী কামরুল ইসলাম আগস্টের মধ্যে প্রধান বিচারপতিকে দায়িত্ব থেকে সরে দাঁড়ানোর আহ্বান জানিয়েছেন। নইলে দুর্বার আন্দোলন গড়ে তোলার হুমকি দিয়েছেন।

স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেছেন, প্রধান বিচারপতি বঙ্গবন্ধুকে অবমাননার মত ধৃষ্টতা দেখিয়েছেন।

এরই মধ্যে সরকারের পক্ষ থেকে ‘অবমাননাকর’মন্তব্য বাতিলে উদ্যোগ নেয়ার কথা বলা হয়েছে। সেই সঙ্গে সরকার সমর্থক আইনজীবীদের পক্ষ থেকে তিন দিনের কর্মসূচিও ঘোষণা করা হয়েছে।

এছাড়ার সারাদেশে আওয়ামী লীগের মন্ত্রী-এমপি ও নেতারা প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনাহার বিরুদ্ধে ক্ষোভ প্রকাশ অব্যাহত রেখেছেন।

মন্তব্য

মতামত দিন

জাতীয় পাতার আরো খবর

মুসা বিন শমসেরের বিরুদ্বে তদন্ত প্রতিবেদন ৩০ নভেম্বর

নিজস্ব প্রতিবেদকআরটিএনএনঢাকা: বহুল আলোচিত ধনকুবের প্রিন্স মুসা বিন শমসেরের বিরুদ্ধে শুল্ক ফাঁকিসহ মানিলন্ডারিং প্রতিরোধ . . . বিস্তারিত

রোহিঙ্গা ইস্যুতে চীন-রাশিয়া বাংলাদেশের বিপক্ষে নয়: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদকআরটিএনএনঢাকা: রোহিঙ্গা ইস্যুতে চীন এবং রাশিয়া বাংলাদেশের বিপক্ষে নয়, তারা তাদের অবস্থান আগের থেকে পরিবর্ . . . বিস্তারিত

 

 

 

 

 

 



ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: ড. সরদার এম. আনিছুর রহমান, গোলাম রসুল প্লাজা (তৃতীয় তলা), ৪০৪ দিলু রোড, নিউ ইস্কাটন, ঢাকা-১০০০।
ফোন: +৮৮০-২-৮৩১২৮৫৭, +৮৮০-২-৮৩১১৫৮৬, ফ্যাক্স: +৮৮০-২-৮৩১১৫৮৬, নিউজ রুম মোবাইল: +৮৮০-১৬৭৪৭৫৭৮০২; ই-মেইল: rtnnimage@gmail.com