ব্রেকিং সংবাদ: |
  • টরেন্টোর হামলাকারী সম্পর্কে সর্বশেষ যা জানা যাচ্ছে
  • তাবিথ আউয়াল ও আব্দুল হাই বাচ্চুকে দুদকে তলব
  • হঠাৎ কেঁপে উঠলো সিলেট, ৫ দশমিক ২ মাত্রার ভূমিকম্প
  • টরোন্টোয় গাড়িচাপায় প্রাণ গেল ১০ পথচারীর, ট্রুডোর সান্ত্বনা
  • বিজেপির শীর্ষ নেতাদের বক্তব্যে ঢাকার রাজনীতিতে তোলপাড়
  • খালেদা জিয়ার সাথে দেখা করতে গেছেন স্বজনরা
  • কাবুলে ভোটার নিবন্ধনকেন্দ্রে হামলায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৬৩
  • ২৫ বছরের যুদ্ধে সোয়া কোটি মুসলিম নিহত, যা একটি বিশ্বযুদ্ধের সমান ক্ষয়ক্ষতি
  • খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে সপ্তাহব্যাপী বিএনপির নতুন কর্মসূচি ঘোষণা
  • ত্রিভুবন বিমানবন্দরের গাফিলতিই দুর্ঘটনার জন্য দায়ী: ইউএস-বাংলা
  • যে শর্তে গাজীপুর সিটি নির্বাচনে বিএনপিকে ছাড় দিল জামায়াত

হি ইজ নট রেসপনসিবল পারসন, অর্থ প্রতিমন্ত্রীকে অর্থমন্ত্রী

১৪ জুন,২০১৭

নিজস্ব প্রতিবেদক
আরটিএনএন
ঢাকা: প্রস্তাবিত বাজেটে বাড়তি আবগারি শুল্ক তুলে নেওয়ার ব্যাপারে অর্থ প্রতিমন্ত্রী এম এ মান্নানের বক্তব্যের সমালোচনা করেছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। তিনি বলেন, ‘হি ইজ নট এ রেসপনসিবল পারসন!’

বুধবার সচিবালয়ে মন্ত্রিপরিষদ সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত সরকারি ক্রয় সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা বলেন।

গত ১ জুন জাতীয় সংসদে জাতীয় বাজেটে ব্যাংক আমানতের ওপর আবগারি শুল্ক ৫০০ টাকা থেকে বাড়িয়ে ৮০০ টাকা করার প্রস্তাব করার পর থেকেই দেশব্যাপী আলোচনায় আসে বিষয়টি। ওই প্রস্তাবে বলা হয়েছে, বছরের যেকোনও সময় ব্যাংক হিসাবে এক লাখ টাকার বেশি স্থিতি থাকলে আবগারি শুল্ক বিদ্যমান ৫০০ টাকা থেকে বাড়িয়ে ৮০০ টাকা করা হবে।

পাশাপাশি ১০ লাখ থেকে এক কোটি টাকা পর্যন্ত এক হাজার ৫০০ টাকার বদলে দুই হাজার ৫০০ টাকা, এক কোটি থেকে পাঁচ কোটি টাকা পর্যন্ত সাত হাজার ৫০০ টাকার বদলে ১২ হাজার টাকা এবং পাঁচ কোটি টাকার বেশি লেনদেনে ১৫ হাজার টাকার বদলে ২৫ হাজার টাকা আবগারি শুল্ক আরোপের প্রস্তাব করেন অর্থমন্ত্রী।

তার এই প্রস্তাবকে সাধারণ নাগরিকদের পাশাপাশি ব্যবসায়ী, ব্যাংকার ও অর্থনীতিবিদরা অযৌক্তিক বলে এর সমালোচনা করে আসছেন।  তারা মনে করছেন শুল্ক বাড়লে লেনদেনের অবৈধ মাধ্যম উৎসাহিত হবে।

বিষয়টি নিয়ে ক্ষমতাসীন ও বিরোধী দলীয় কয়েকজন সংসদ সদস্যও জাতীয় সংসদে অর্থমন্ত্রীর প্রস্তাব প্রত্যাহারের আহ্বান জানান।

এরপর মঙ্গলবার অর্থ প্রতিমন্ত্রী মান্নান সংসদে  বলেন, আমার বিশ্বাস, এ বিষয়ে আমরা একটা গ্রহণযোগ্য সমাধানে আসতে পারব। আমরা আশ্বস্ত করছি, এ সম্পর্কে এ মুহূর্তে সরকারের উচ্চ মহলে চিন্তা-ভাবনা চলছে।’

কিন্তু এ নিয়ে অর্থমন্ত্রীর বক্তব্য জানতে চাইলে বুধবার তিনি বলেন, প্রতিমন্ত্রী ওই কথা বলার মত দায়িত্বশীল অবস্থানে নেই।

তিনি আরো বলেন, ‘এ শুল্ক আগেও ছিল। তবে এবার হারটা বাড়ানো হয়েছে। এরপর থেকেই আপনারা কথা বলা শুরু করেছেন। বাজেটে এ শুল্ক বহাল থাকবে কিন্তু হারটা কিছুটা কমানো হতে পারে।’

মন্তব্য

মতামত দিন

অর্থনীতি পাতার আরো খবর

বাংলাদেশের ‘অপ্রত্যাশিত’ সমৃদ্ধির নেপথ্যে

নিউজ ডেস্কআরটিএনএনওয়াশিংটন: বিশ্ববিদ্যালয় পর্যায়ের অর্থনীতির ছাত্ররা ‘বাংলাদেশ প্যারাডক্স’ কথাটার সঙ্গে পর . . . বিস্তারিত

রানা প্লাজা ট্র্যাজেডি: গার্মেন্ট ব্যবসায় কী পরিবর্তন হয়েছে?

নিউজ ডেস্কআরটিএনএনঢাকা: বিদেশি ক্রেতাদের চাহিদা মেনে কারখানার নিরাপত্তা ও পরিবেশ উন্নয়নে দ্রুত পদক্ষেপ নেয়ায় রানা প্ল . . . বিস্তারিত

 

 

 

 

 

 



ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক: ড. সরদার এম. আনিছুর রহমান,
ফোন: +৮৮০-২-৮৩১২৮৫৭, +৮৮০-২-৮৩১১৫৮৬, ফ্যাক্স: +৮৮০-২-৮৩১১৫৮৬, নিউজ রুম মোবাইল: +৮৮০-১৬৭৪৭৫৭৮০২; ই-মেইল: rtnnimage@gmail.com